মেয়েকে ধর্ষণের অভিযোগে বাবা গ্রেফতার

সমগ্র বাংলা

মেয়েকে ধর্ষণের অভিযোগে ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা থেকে আলাল হুদা নামে এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ভুক্তভোগীর মায়ের দায়ের করা মামলায় শুক্রবার রাতে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

মুক্তাগাছা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আলী মাহমুদ এ তথ্য নিশ্চিত করে জানিয়েছেন, উপজেলার দুল্লা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ভুক্তভোগী মেয়েটি পুলিশের কাছে জবানবন্দি দিয়েছে এবং অভিযুক্ত হুদাও বিষয়টি স্বীকার করেছেন। ওই মেয়ে এবং অভিযুক্তকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

অভিযোগের বরাত দিয়ে ওসি জানান, পেশায় অটোরিকশা চালক হুদার তিন মেয়ে। এরমধ্যে তার বড় মেয়ে ষষ্ঠ শ্রেণিতে লেখাপড়া করে। গেল ৭ মাস ধরে এই মেয়েকে নানা প্রলোভন ও ভয়ভীতি দেখিয়ে ধর্ষণ করে আসছিলেন হুদা।

নানা আকুতিতেও বাবার নির্যাতন থেকে রেহাই না পেয়ে মাকে জানায় শিশুটি। তার মা প্রতিবাদ করলে তাতে ক্ষিপ্ত হয়ে মা-মেয়ে দু’জনকেই বিভিন্ন সময় মারধর করে হুদা। তবে ওই অত্যাচার নীরবে সহ্য করেন মা-মেয়ে।

এরপরও তা অব্যাহত থাকলে সাতদিন আগে মেয়েদের নিয়ে ঘর ছেড়ে যান মা। পরে স্বামী আলাল হুদার অনুরোধে শুক্রবার বাড়িতে ফিরে আসেন তারা। বাড়িতে আসার পরও স্বামীর ব্যবহার সন্দেহজনক মনে হলে স্থানীয় এক ইউপি সদস্যকে বিষয়টি খুলে বলেন ওই মা। ইউপি সদস্য ঘটনা জানার পর বিকালে বিষয়টি পুলিশকে অবহিত করেন। পরে রাত ৯টার আলাল হুদাকে গ্রেফতার করা হয়।

পরবর্তীতে মেয়েটির মা বাদী হয়ে মামলা করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *