‘তিনি নির্দেশ দিলেই দেশের বাইরে নেয়া হবে’

বিনোদন

গুণী অভিনেতা এটি এম শামসুজ্জামান বেশ কিছুদিন হল লাইফ সাপোর্টে আছেন। বর্তমানে তিনি রাজধানীর আজগর আলী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

গতকাল (শুক্রবার) তার স্বাস্থ্যের খোঁজ-খবর নিতে হাসপাতালে যান জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের সমন্বয়ক ডা. সামন্ত লাল সেন ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া। তাদের সঙ্গে আরও ছিলেন সংগীতশিল্পী রফিকুল আলম।

এটিএম শামসুজ্জামানের মেজ মেয়ে কোয়েল আহমেদ জানান, ‘বাবাকে দেখতে উনারা এসেছিলেন। এখানকার চিকিৎসকদের সঙ্গে কথা বলেছেন। বাবার চিকিৎসার সব কাগজ-পত্র চেয়েছেন সামন্ত লাল সেন।

প্রধানমন্ত্রী দেশে ফিরলেই বিষয়টি নিয়ে তার সঙ্গে কথা বলবেন বলে জানান সামন্ত লাল সেন। আজ দেশে ফিরেছেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি নির্দেশ দিলেই দেশের বাইরে নিয়ে উন্নত চিকিৎসা শুরু হবে বাবার।’

এদিকে, এটি এম শামসুজ্জামানের শারীরিক অবস্থা অপরিবর্তীত। ৬ই মে সকাল থেকে লাইফ সাপোর্টে আছেন এই অভিনেতা। নিউমোনিয়ার কারণে শ্বাস নিতে পারছেন না তিনি।

জানা যায়, গত ৩০ শে এপ্রিল বিকেল তিনটার দিকে এটি এম শামসুজ্জামানকে লাইফ সাপোর্টে নেওয়া হয়েছিল। ৩রা মে দুপুরে তার শারীরিক অবস্থা কিছুটা উন্নতি হয় এবং খুলে দেওয়া হয় লাইফ সাপোর্ট। একটু সময় ভালো থাকার পর আবারও ৬ই মে তাকে নেয়া হয় লাইফ সাপোর্টে।

গত ২৬ শে এপ্রিল রাত সাড়ে নয়টায় পেট ফাঁপা, বার বার বমি ও কোষ্ঠকাঠিন্য জনিত সমস্যা নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হন এ টি এম শামসুজ্জামান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *